হামানকর্দ্দিতে সন্ত্রাসী চক্রের হামলায় গুরুতর আহত ২জন

চাঁদপুর খবর রির্পোট: তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে চাঁদপুর সদর উপজেলার ৬নং মৈশাদী ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের হামানকর্দ্দী গ্রামে অফিস সহায়ক মামুন বেপারী (৩৫ ) ও তার ছোট ভাই মো: আরাফাত বেপারী(২২)কে স্থানীয় মো: আল আমিনের নেতৃত্বে সন্ত্রাসী চক্র কর্তৃক হামলার ঘটনা ঘটেছে ।

এতে উভয়েই গুরুতর আহত হয়েছে । এর মধ্যে আহত অফিস সহায়ক মামুন বেপারীর অবস্থা আশংকাজনক । তার মাথায় মারাত্নক ইনজুরি ঘটেছে ।

মাথায় রক্তক্ষরণ ঘটেছে । বর্তমানে সে জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষনে রয়েছে। বতমানে তাকে ২৫০শয্যা বিশিষ্ট চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে ।

জানা গেছে, হামলাকারী সন্ত্রাসী চক্রের অধিকাংশ আসামী মাদক আসক্ত ।

গতকাল ২৬অক্টোবর সন্ধ্যায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ৯নং ওয়ার্ডের হামানকর্দ্দী গ্রামে এই ঘটনা ঘটে । গুরুতর আহত মামুন বেপারী উত্তর শাহতলী জোবাইদা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের অফিস সহায়ক পদে কমরত আছে ।

এ ঘটনায় হামলার শিকার অফিস সহায়ক মামুন বেপারী ও মো: আরাফাত বেপারীর পিতা মো: হারুন বেপারী গতকাল ২৬ অক্টোবর (বৃহস্পতিবার) বাদী হয়ে মডেল থানায় এজহার দাখিল করেছে । মামলায় বিবাদীরা হলেন, ০১। মো: আল আমিন, পিতা-অজ্ঞাত, গ্রাম-হাপানীয়া, পো: শাহতলী, চাঁদপুর সদর, চাঁদপুর, ২। মো: কাউছার গাজী, পিতা- মো: নাসির গাজী, ৩। মো: শাকুর গাজী, পিতা-মো: নাসির গাজী, ৪। মো: নাসির গাজী, পিতা-মো: শহীদ গাজী, সর্ব সাং-হামানকর্দ্দি, পো: শাহতলী, চাঁদপুর সদর চাঁদপুর সহ অজ্ঞাতনামা ৬-৭জনকে আসামি করে চাঁদপুর সদর মডেল থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।
বিবাদীদের অধিকাংশ আসামী মাদকআসক্ত ।

সন্ত্রাসী হামলার বিষয়টি চাঁদপুরের সদর সার্কেল ইয়াসিন আরাফাত ও চাঁদপুর সদর মডেল থানার ওসি শেখ মুহসীন আলমকে জানানো হয়েছে। আসামী গ্রেফতারে দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহন করার নির্দেশ দিয়েছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, সন্ত্রাসী হামলার শিকার মামুন বেপারীকে সন্ত্রাসী কায়দায় দেশীয় অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে গুরুতর আহত করে। বর্তমানে সে জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষনে রয়েছে।

সম্পর্কিত খবর